মে 11, 2019

-প্রথমে গত সপ্তাহের ঘটনাবলী পর্যালোচনা করা যাকঃ

  • EUR/USD মুদ্রাজুড়ি। সাম্প্রতিককালের মূল অর্থনৈতিক ঘটনা ছিল ইউএস-চীনের বাণিজ্য আলোচনার ব্যর্থতা। আমেরিকা অনেকগুলি চীনা সামগ্রীর উপরে 10% থেকে to 25% শুল্প বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত নিয়েছে, যার পরে চীনের বাণিজ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেছেন যে তারাও প্রতিশোধকমূলক পদক্ষেপ নিতে বাধ্য হবেন। তবে, এই বিবৃতিগুলির পরেও বাজার বরং মন্থর গতিতে চলছে, এই মুদ্রাজুড়ির সাপ্তাহিক ওঠানামা 85 পয়েন্টের বেশী হয় নি, এবং এটি 1.1250-এর প্রতিরোধক স্তরে প্রবেশ করতে পারে নি;   
  • GBP/USD  মুদ্রাজুড়ি। এই মুদ্রাজুড়ির নড়াচড়া কেবলমাত্র একটি ছোট্ট শব্দের উপর নির্ভর করে আছেঃ ব্রেক্সিট। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে-র সাথে বিরোধী নেতা জেরেমি কর্বিনের ইইউ থেকে বেরিয়ে আসার শর্তাবলী নিয়ে এক চুক্তিমতে পৌঁছানোর আশা সকালের কুয়াশার মতই বিলীন হয়ে গিয়েছে। এর ফলে, ব্রিটিশ মুদ্রার প্রায় 200 পয়েন্টের বেশী পতন হয়ে 1.2965-এর স্থানীয় তলদেশে পৌঁছিয়েছে। এর পরে, একটি সংশোধন হয়েছে, এবং এই মুদ্রাজুড়ি সপ্তাহটির শেষে 1.3000-এ থেমেছে;
  • USD/JPY মুদ্রাজুড়ি। বৃহৎ মুদ্রাজুড়ির চার্টের কথা বিবেচনা করে, বাজারের ঘটনাগুলি বেশীরভাগ জাপানী মুদ্রাকে প্রভাবিত করছে। ইউএস-চীনের আলোচনার সমস্যা এবং ঝুঁকিসম্পন্ন বিনিয়োগে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহের অভাবে ইয়েন ডলার থেকে প্রায় 150 পয়েন্ট ফিরিয়ে এনেছে এবং 109.70-109.95-এর অঞ্চলে মার্চের শেষের দরে ফিরে আসতে পেরেছে; 
  • ক্রিপ্টোমুদ্রা। Bitcoin-এর আবার কখনো বিশ্বব্যাপী নির্ভরযোগ্য পরিসম্পদ হতে পারার সেই প্রশ্নটি এখনো থাকছে। তবে, এটি সত্য যে বিনিয়োগ করার সামগ্রীর মধ্যে এটি এখনো এক শীর্ষস্থান নিয়ে রেখেছে। Binance রিসার্চের এক সাম্প্রতিক অধ্যযনে দেখা গিয়েছে যে 2019 সালের শুরু থেকে, উল্লেখ ক্রিপ্টোমুদ্রার দরে 50%-এর থেকে বেশী বৃদ্ধি পেয়েছে, তেলের দাম প্রায় 33% বৃদ্ধি পেয়েছে, প্রযুক্তি শেয়ারগুলির 18% বৃদ্ধি হয়েছে, এবং সোনার দরের প্রায় 1% হ্রাস পেয়েছে। BTC এর এরকম উন্নত ক্রিয়াশীলতার কারণে বিনিয়োগকারীরাও উদাসীন থাকতে পারছেন না। উদাহরণস্বরূপ, deVere Group কনসাল্টিং সংস্থার মতে, 500 মিলিয়ন ডলার সম্পদের মালিকানাসম্পন্ন বিত্তশালী লোকদের 68 শতাংশ পরবর্তী 2-3 বছরে (ইউএস, গ্রেট ব্রিটেন, সুইজারল্যাণ্ড, স্পেন এবং ইউএই এই সমীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছিলেন) Bitcoin-এ বিনিয়োগ করতে চাইছেন।
    ইতিমধ্যে, বাজারে মূলধনী বিন্যাস 190 বিলিয়ন ডলারের কাছাকাছি এসে পৌঁছিয়েছে, যা বর্তমান বছরের শুরু থেকে উঁচুতে অবস্থান করছে, এবং Bitcoin মে মাসের ঘটনাটিকে বাস্তবায়িত করার জন্য ক্রমবর্ধমান গতিতে এগিয়ে চলেছে। মনে করুন তো 70% বিশেষজ্ঞরা পূর্বাভাস করেছিলেন যে BTC/USD ক্রিপ্টোজুড়ির দর মে মাসের মধ্যে 6,000$ অবধি বৃদ্ধি পাওয়া উচিৎ। তবে, সেটি 3ই মের মধ্যে ঘটে গিয়েছে, এবং গত সপ্তাহের শেষে এটি 6,400$-এ এসে পৌঁছিয়েছে।
    অন্যান্য মূল বিকল্প মুদ্রাগুলির কথা বলতে গেলে, সেগুলি তাদের “প্রবীণ ভ্রাতা”-র মত না হয়ে হয় শূন্য, যেমন Ethereum (ETH/USD), না হয় এক নেতিবাচক প্রবণতা দেখিয়েছেঃ Litecoin (LTC/USD)-এর দরে প্রায় 11.0% পতন হয়েছে, এবং Ripple (XRP/USD-এর দরে প্রায় 9% হ্রাস হয়েছে।   

 

আসন্ন সপ্তাহের পূর্বাভাসের বিষয়ে, অনেক বিশ্লেষকদের মতামতের সাথে সাথে প্রাযুক্তিক ও রৈখিক বিশ্লেষণের বিভিন্ন পদ্ধতির ভিত্তিতে কৃত পূর্বাভাসগুলিকে সংক্ষিপ্ত করে আমরা নিম্মলিখিত বক্তব্য রাখছিঃ

  • EUR/USD মুদ্রাজুড়ি। বাজার অনুসারে, এই মুহূর্তে, আমেরিকার সাথে চীনের চুক্তির প্রয়োজন চীনের সবথেকে বেশী প্রয়োজন কারণ এর অর্থনীতি খুবই চাপের মুথে পড়েছে। তবে, ক্রমাগত বাণিজ্য যুদ্ধ আমেরিকানদের কাছে বৃহৎ সমস্যা হয়ে আসতে পারে যা দেশটিকে মন্দাবাজারের দিকে ঠেলে দেবে। এরকম পরিস্থিতিতে, ওয়াল স্ট্রীট জার্নালের মে-র ভোট অনুযায়ী, 51% বিশেষজ্ঞ বিশ্বাস করেন যে আর্থিক নীতি কঠোর করার পরিবর্তে, ইউএস ফেডারেল রিজার্ভের এটিকে ঢিলে করার সম্ভাবনা রয়েছে। (এপ্রিলে 44% উত্তরদাতা সহজ করার পক্ষে ভোট দিয়েছিলেন, এবং মার্চে এই সংখ্যা মাত্র 19%-এ ছিল।) বর্তমানে, 60% বিশেষজ্ঞ D1-তে রৈখিক বিশ্লেষণের সহায়তায় ইউরোকে পছন্দ করছেন, এই বিশ্বাসে যে এই মুদ্রাজুড়ির অদূর ভবিষ্যতে 1.1280-1.1325-এর অঞ্চলে বৃদ্ধি পেতে পারে। পরবর্তী লক্ষ্যমাত্রা হল মার্চের উচ্চতা 1.1400 এবং 1.1450।
    অন্যদিকে, চীনের বর্তমান সমস্যায় ইউরোজোনের অর্থনীতিতে একটি নেতিবাচক প্রভাব পড়তে পারে, যার এর সাথে একটি ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক রয়েছে। এবং এটি ইউরোপীয়ান মুদ্রার শক্তির বিষয়ে কিছু সমস্যা বৃদ্ধি করতে পারে। মাসিক পূর্বাভাসের স্থানান্তরে, 70% বিশেষজ্ঞ মন্দাবাজারকে সমর্থন জানাচ্ছে, এই বিশ্বাসে যে এই মুদ্রাজুড়ি মাঝারি-মেয়াদের নিম্নমুখী চ্যানেলে এগিয়ে চলবে এবং আবারও এপ্রিলের নিম্ন অবস্থান 1.1110-এ পৌঁছানোর চেষ্টা করবে। H4-তে রৈখিক বিশ্লেষণ এবং H4 ও D1-তে 15% দোদুল্যমান সূচক ইঙ্গিত দিচ্ছে যে এই মুদ্রাজুড়ির অধিক ক্রয় হয়েছে,তারাও মন্দাবাজারের দিকে ঝুলে রয়েছে। নিকটতম সহায়ক স্তরগুলি হল 1.1175 এবং 1.1140;
    আসন্ন ঘটনাগুলির কথা বলতে গেলে, যাতে আপনার মনোযোগ দেওয়া উচিৎ হবে, চীনের অর্থনীতিতে প্রত্যক্ষ বিনিয়োগের তথ্য, যা 13ই মে সোমবারে প্রকাশিত হবে আর তার সাথে জার্মানী এবং ইউরোজোনের জিডিপি এবং আমেরিকার খুচরো বিক্রয়ের উপরে ডেটা বুধবার, 15ই মে-তে প্রকাশিত হবে। 
  • GBP/USD  মুদ্রাজুড়ি। ইউকে-র শ্রমবাজারের পরিসংখ্যান মঙ্গলবার, 14ই মে প্রকাশিত হবে। তবে, এই সূচকগুলি যাইহোক না কেন, মূল সমস্যাটি হল কিন্তু ব্রেক্সিট। এরকম একটা স্থির ধারণা তৈরী হচ্ছে যে প্রধানমন্ত্রী মে এই সমস্যার সমাধান আদৌ করতে পারবেন না, আর তাই এটি ব্রিটিশ মুদ্রার উপর চাপ রেখেছে।
    65% বিশ্লেষক বিশ্বাস করেন যে পাউণ্ডের পতন জারী থাকবে,যার সাথে বেশীরভাগ প্রবণতা নির্দেশক এবং H4 ও D1-তে রৈখিক বিশ্লেষণ সহমত আছে। নিকটতম সহায়ক স্তর হল 1.2985, লক্ষ্যমাত্রা হল 1.2870-এর অঞ্চলে এপ্রিলের নিম্ন অবস্থান।
    বাকী 35% বিশেষজ্ঞ এই মুদ্রাজুড়ির 1.3100-এর স্তরের উপরে ফিরে আসার পক্ষে সমর্থন জানিয়েছেন, লক্ষ্যমাত্রা হল 1.3200। দোদুল্যমান সূচকদের কথা বলতে গেলে, এই পূর্বাভাস লেখার সময়ে তারা উভয় সময়সীমাতেই একটি নিরেপক্ষ অবস্থান নিয়েছে।  
  • USD/JPY মুদ্রাজুড়ি। 55% বিশ্লেষক, রৈখিক বিশ্লেষণ এবং 85% নির্দেশকদের সহায়তায় বিশ্বাস করেন যে নিরাপদ-স্বর্গের মুদ্রা হিসাবে ইয়েন তার অবস্থান শক্ত করে চলবে, এবং ডলারের সহায়ক স্তরকে নীচে 109.00-এর স্তরে নামিয়ে আনবে আর তারপরে আরো 50 পয়েন্ট নীচে যাবে। এই মুহূর্তে, মাত্র 45%বিশেষজ্ঞ এবং 15% দোদুল্যমান সূচক তেজিবাজারের পক্ষে রয়েছে এই ইঙ্গিত দিয়ে যে এই মুদ্রার অধিক বিক্রয় হয়েছে। তবে, দীর্ঘ-মেয়াদী পূর্বাভাসে, ইতিমধ্যেই 80% বিশ্লেষক আশা করছেন যে এই মুদ্রাজুড়ি 111.00-112.00-এর পরিসরে ফিরে আসবে;
  • ক্রিপ্টোমুদ্রা। তাই, Bitcoin একটি খুব শক্তিশালী সহায়ক/প্রতিরোধক অঞ্চলে পৌঁছিয়েছে, 2018 সালের ফ্রেবুয়ারীর উল্লেখযোগ্য স্তরে ফিরে এসেছে। Galaxy সংস্থার বিশ্লেষকরা অনুমান করছেন যে ভবিষ্যতে এই মুদ্রার দর 400 হাজার ডলারে পৌঁছাতে পারে। কিন্তু এটা তখনই ঘটবে যখন পুরো বিকেন্দ্রীকরণ দূর হবে এবং বৃহৎ সংস্থাগত বিনিয়োগকারীদের নিয়ম অনুসারে পরিচালিত হবে। ইতিমধ্যে, 60% বিশেষজ্ঞ বিশ্বাস করেন যে অদূর ভবিষ্যতে এই ক্রিপ্টোজুড়ি 6,100-6,840$-এর পরিসরে ওঠানামা করবে, যেই অবস্থানে মধ্য-নভেম্বরে পতন হবার আগে গত সেপ্টেম্বর-অক্টোবরে বিরাজ করছিল।
    20% বিশ্লেষক এটি মনে করতে চাইছেন যে, অনুকূল খবরের প্রেক্ষাপটে, গত মাসের ইতিবাচক ক্রিয়াশীলতা বজায় থাকবে, এবং Bitcoin-এর দর 7,400$-এর উচ্চতায় পৌঁছাবে। বাকী 20% বিশেষজ্ঞদের মতে, তারা এই পরিস্থিতিকে আরো হতাশভাবে দেখছেন এই আশঙ্কায় যে এই ক্রিপ্টোজুড়ি 5,570-5,850$-এর অঞ্চলে ফিরে আসবে।

 

-রোমান বাটকো, NordFX

 

-বিজ্ঞপ্তিঃ এই লেখনীগুলিকে আর্থিক বাজারে লেনদেন করার জন্য বিনিয়োগ বা নির্দেশিকার জন্য সুপারিশ হিসাবে গণ্য করা উচিত হবে নাঃ এগুলি শুধুমাত্র তথ্যমূলক উদ্দেশ্যে করা হয়েছে। আর্থিক বাজারে ট্রেডিং ঝুঁকিপূ্র্ণ এবং এতে গচ্ছিত অর্থের সম্পূর্ণ ক্ষতি হতে পারে।


« বাজার বিশ্লেষণ ও সংবাদ
প্রশিক্ষণ
গ্রহণ করুন
মার্কেটে নতুন? ব্যবহার করুন “শুরু করা যাক” বিভাগটি।
প্রশিক্ষণ শুরু করুন
আমাদের অনুসরণ করুন (সামাজিক নেটওয়ার্কগুলিতে)